Begin typing your search above and press return to search.

বিশ্বকাপ ২০১৮: গ্ৰুপ বিশ্লেষণ, গ্ৰুপ-D

বিশ্বকাপ ২০১৮: গ্ৰুপ বিশ্লেষণ, গ্ৰুপ-D

Sentinel Digital DeskBy : Sentinel Digital Desk

  |  14 Jun 2018 1:20 PM GMT

আর্জেন্টিনা

১৯৭৮,১৯৮৬-র বিশ্বকাপ বিজয়ী দল আর্জেন্টিনা।

আগের বিশ্বকাপে হেরে আর্জেন্টিনার লিওনেল মেসি আন্তর্জাতিক ফুটবল থেকে অবসর নিয়েছিলেন। কিন্তু শেষ কোয়ালিফাইং ম্যাচে ইকুয়েডরের বিরুদ্ধে হ্যাটট্ৰিক করে দলের রাশিয়া যাত্ৰার পথ খুলে দেন। আক্ৰমণ ও রক্ষণভাগ খুবই শক্তিশালী দলের। কোচ জর্জ সামপাওলি দলকে সঠিক দিশা দেখাতে পারলে বিশ্বকাপে কামাল দেখাতে পারে তারা। দলের তারকা স্ট্ৰাইকার মেসি। মেসি একাই দলকে জেতানোর ক্ষমতা রাখেন। তবে ব্ৰাজিল,জার্মানি,স্পেন খেতাব জয়ের অন্যতম দাবিদার।

ক্ৰোয়েশিয়া

১৯৯৮ সালে বিশ্বকাপে তৃতীয় স্থানাধিকারী।

আইসল্যান্ডের কাছে হারলেও ইউরোপিয়ান প্লেঅফে গ্ৰিসকে হারিয়ে কোয়ালিফাই করে ক্ৰোয়েশিয়া। কোচ জ্লাটকো ডালিক দলকে কীভাবে গড়েছেন তার ওপর নির্ভর করছে সাফল্যের দৌড়ে কতটা এগোবে ক্ৰোয়েশিয়া। তারকা খেলোয়াড় লুকা মডরিক দলের মূল চালিকাশক্তি। তাই ক্ৰোয়েশিয়া যে কোনও দলের কাছে হুমকি হয়ে দাঁড়াতে পারে।

আইসল্যান্ড

এটাই প্ৰথম বিশ্বকাপ আইসল্যান্ডের।

ছোট্ট একটা দেশ হিসেবে আইসল্যান্ড এবার বিশ্বকাপে কোয়ালিফাই করেছে।

আমরা কি আশা করতে পারি? অদম্য গতি রয়েছে এই দলের। এবার আইসল্যান্ডের চ্যালেঞ্জকে কেউ খাটো করে দেখতে পারবে না।

তারকা খেলোয়াড় কে? এভারটনসের জিলফি সিগার্ডসসন আইসল্যান্ডের সবচেয়ে স্বীকৃত মুখ। ইউরো ২০১৬তে দল তার সমষ্টিগত শক্তিকে প্ৰমাণ করেছে।

দল কতটা সফল হতে পারে? ২০১৬-র ইউরো কাপে ভাল প্ৰদর্শন করলেও এবার তারা নকআউট রাউন্ড পার হতে পারবে কিনা তা নিয়ে সন্দেহের অবকাশ রয়েছে।

Next Story